Bangal Press
ঢাকাSunday , 11 June 2023
  1. অর্থনীতি
  2. আইন-আদালত
  3. আন্তর্জাতিক
  4. এক্সক্লুসিভ
  5. ক্যাম্পাস
  6. খেলাধুলা
  7. চাকরির খবর
  8. জাতীয়
  9. তথ্যপ্রযুক্তি
  10. বিনোদন
  11. ভ্রমণ
  12. মতামত
  13. রাজনীতি
  14. লাইফস্টাইল
  15. শিক্ষা জগৎ
আজকের সর্বশেষ সবখবর

রপ্তানিযোগ্য আম উৎপাদন প্রকল্পে স্বপ্ন দেখছে চাষি

Link Copied!

আমের জন্য বিশেষ পরিচিতি রয়েছে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার। এ জেলার সুস্বাদু আম দেশের সীমানা ছাড়িয়ে বিদেশেও রপ্তানি হয়েছে বহুবার। তবে এ আমের কদর বিদেশে থাকলেও আসেনি কাঙ্ক্ষিত সাফল্য। বিদেশে নিরাপদ আম রপ্তানি করতে একটি প্রকল্প হাতে নিয়েছে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর। প্রকল্পের নাম দেওয়া হয়েছে ‘রপ্তানিযোগ্য আম উৎপাদন প্রকল্প’।

চলতি বছরে চালু হওয়া এ প্রকল্পটির মাধ্যমে বিদেশে আম রপ্তানিতে আশা দেখছেন চাষিরা। অন্যান্য বছর নিজ উদ্যোগে রপ্তানিযোগ্য আম উৎপাদন করলেও সেই আম বিদেশে পাঠাতে না পেরে লোকসানের মুখে পড়েছিলেন চাষিরা। তবে এবার সরকারি প্রকল্প থাকায় আম রপ্তানির নিশ্চয়তা রয়েছে বলে জানিয়েছে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর।

বর্তমানে এ জেলার আম সুমিষ্ট হলেও রপ্তানিতে তেমন সাড়া পড়েনি। কারণ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশের আমের চাহিদা থাকলেও আইন-কানুনের বেড়াজালে চাষিরা বিদেশে রপ্তানি করতে পারছেন না। আমের উৎপাদন বেশি হলেও কাঙ্ক্ষিত মূল্য না পেয়ে হতাশায় ভুগছেন চাষিরা। এতে আমগাছ কেটে ফেলছেন অনেকে।

চাঁপাইনবাবগঞ্জের ম্যাংগো ফাউন্ডেশনের সদস্য সচিব আহসান হাবিব বলেন, এবার কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের প্রশিক্ষণ নিয়ে বালাইনাশক কম স্প্রে করে আম চাষাবাদ করছি। ফলনও ভালো হয়েছে। আমগুলো যদি আমরা রপ্তানি করতে পারি তাহলে কাঙ্ক্ষিত মূল্য পাওয়া যাবে।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা কৃষি অ্যাসোসিয়নের সাধারণ সম্পাদক মুঞ্জের আলম মানিক বলেন, কৃষি সম্প্রসারণ অধিপ্তর বিদেশে আম রপ্তানির জন্য যে প্রকল্প হাতে নিয়েছে তা অত্যন্ত ভালো পরিকল্পনা। এ প্রকল্পে আম নিয়ে কাজ করলে চাষিরা কাঙ্ক্ষিত দাম পাবেন।

সম্প্রতি জেলার নাচোল উপজেলা থেকে বদরুদ্দোজা নামের একজন ইংল্যান্ড ও সুইডেনে এক হাজার ৪০০ কেজি আম রপ্তানি করেছেন। তিনি রপ্তানিযোগ্য আম উৎপাদন প্রকল্পের আওতায় না থাকলেও কৃষি সম্প্রসারণ তাকে সব ধরনের সহায়তা করেছে।

জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপপরিচালক পলাশ সরকার জানান, চলতি বছরই রপ্তানিযোগ্য আম উৎপাদন প্রকল্প হাতে নেওয়া হয়েছে। এ প্রকল্পের আওতায় ২০১ জন আমচাষি রয়েছেন। এদের সবাইকে একটি করে প্রদর্শনীসহ প্রশিক্ষণ, সার, কীটনাশক ও বালাইনাশক ফ্রুট ব্যাগ দেওয়া হয়েছে। এ প্রকল্পের মাধ্যমে কৃষকরা রপ্তানিযোগ্য আম উৎপাদন করে বিদেশের মার্কেটে পাঠাতে পারবেন।

সোহান মাহমুদ/এসআর/জিকেএস

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো। বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।